কুড়িগ্রামে’ বাড়ছে’ নদ-নদীর’ পানি!

ভারী বৃষ্টিপাতের কারণে’ কুড়িগ্রামে দুধকুমার, ধরলা, তিস্তা, ব্রহ্মপুত্রসহ: অন্যান্য নদ-নদীর পানি বাড়ছে। রোববার (১৬ জুন) সকালের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, শনিবার’ সন্ধ্যা ৬টা থেকে আজ সকাল: ৯টা পর্যন্ত ধরলা নদীর পানি সেতু পয়েন্টে ২২ সেন্টিমিটার, দুধকুমার নদীর’ পানি পাটেশ্বরী পয়েন্টে’ ৭ সেন্টিমিটার, ব্রহ্মপুত্র নদের পানি নুনখাওয়া পয়েন্টে ১৫ সেন্টিমিটার বৃদ্ধি পেয়ে বিপৎসীমার’ নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

পানি বৃদ্ধি ফলে এসব নদীর’ তীরবর্তীর নিচু অঞ্চলের বাদাম ও সবজি ক্ষেত তলিয়ে গেছে। গেল ২৪ ঘণ্টায় জেলার দুধকুমার নদীর’ অববাহিকায় সবচেয়ে বেশি বৃষ্টিপাত হয়েছে। এখানে ১৩০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। ফলে দুধকুমার নদীর অববাহিকায় একটি স্বল্প’ মেয়াদের বন্যার আশংকা করছে: পানি উন্নয়ন বোর্ড। এই বৃষ্টিপাতের কারণে দুধকুমার নদীর অববাহিকার নিম্নাঞ্চল পানিতে’ তলিয়ে গেছে। এতে করে ভূরুঙ্গামারী উপজেলার পাইকেরছড়া ইউনিয়নের ২ ও ৪ নম্বর ওয়ার্ডের’ বেশকিছু বাড়িতে পানি উঠেছে।

২ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য জাহাঙ্গীর’ আলম বলেন, ওয়ার্ডের পাইকডাঙ্গা’ গ্রাম এবং একই ইউনিয়নের ছিটপাইকের ছড়া গ্রামের শতাধিক বাড়িতে’ পানি উঠেছে। এ ছাড়া চরাঞ্চলের’ মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়েছে। কুড়িগ্রাম পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী’ রাকিবুল হাসান বলেন, ভারতের’ উজানে ও দেশের বিভিন্ন জায়গায় ভারী বৃষ্টিপাতের কারণে জেলার নদ-নদী গুলোর’ পানি দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে।

আগামী সপ্তাহে জেলার নিম্নাঞ্চলের চরগুলো তলিয়ে যাবার আশংকা করা হচ্ছে। কুড়িগ্রামের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ সাইদুল আরীফ বলেন, কুড়িগ্রামে প্রতি বছর বর্ষা মৌসুমে নদ-নদীগুলোর পানি বৃদ্ধি পেয়ে চরের নিম্নাঞ্চল তলিয়ে যায়। এ পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রাথমিকভাবে সব-ধরণের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

Leave a Comment